Home অাইন আদালত সুবর্ণচরে সন্ত্রাসী হামলায় আহত ৩

সুবর্ণচরে সন্ত্রাসী হামলায় আহত ৩

582

নিজস্ব প্রতিবেদক: নোয়াখালী সুবর্ণচরে ভুমি সংক্রান্ত ঘটনার জের ধরে করে পরিকল্পিত সন্ত্রাসী হামলার একই পরিবারের ৩ জন গুরুতর আহত হয়েছে। আহতরা প্রথমে সুবর্ণচর উপজেলা স্বাস্থ কমপ্লেক্সে ভর্তি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক অবস্থা গুরুতর দেখে তাদের নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

রোববার সকাল সাড়ে ১০টায় ২নং চরবাটা ইউনিয়নের চরমজিদ গ্রামের কলনির রাস্তার মাথা নামক এলাকায় চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে এ সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটে।

হামলায় আহত স্থানীয় ব্যবসায়ী গোফরান সওদাগর জানান, ২নং চরবাটা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান (বর্তমানে বরখাস্ত)মোজাম্মেল হোসেন দীর্ঘদিন যাবৎ আমার মালিকানাধীন ভূমি দখলের চেষ্টা করে আসছে, আজ সকালে সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে আমাদের সম্পত্তি দখল করতে আসলে আমরা বাঁধা দিলে মোজাম্মেল চেয়ারম্যান তার ভাই দেলোয়ার, চরবাটা গ্রামের হকরের পুত্র নুর উদ্দিন, চেরাজল হকের পুত্র আবুল কালাম, খায়ের ওরফে খায়ের নেতা(৪০), ফখরুল , চর মজিদ গ্রামের ফজলুল হকের পুত্র সেন্টু সহ ১৫-২০ জনের সন্ত্রাসী নিয়ে আমাদের উপর হামলা চালায়। এতে আমি ও আমার ছেলে আবু তাহের (৩৫), আবুল কালাম আযাদ(৩৩) কে দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে । পরে স্থানীয়রা আমাদের উদ্ধার করে আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ঘটনার চরজব্বার থানার অফিসার ইনচার্জ সাহেদ উদ্দিন জানান , হামলার ঘটনাটি আমি শুনেছি, তবে কেউ অভিযোগ করেনি , অভিযোগ করলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।একাধিকবার ফোন দিলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি ।

উল্লেখ্য চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেনের বিরুদ্ধে, ইউনিয়ন পরিষদে বিচারপ্রার্থী নারীকে রাতভর আটকে রেখে নির্যাতন, শালিসের নামে স্কুলে ছাত্রী ও তার পরিবারকে মারধর, অবৈধ বালু উত্তোলন, সরকারি বরাদ্ধ আত্মসাৎ, বিচার প্রার্থী এক অসহায় ব্যক্তিকে টয়লেটে আটকে রেখে নির্যাতন, সরকারি গাছ কর্তনসহ একাধিক মামলা রয়েছে তার বিরুদ্ধে। এছাড়াও চেয়ারম্যানের বাড়ীতে তার বাড়ির কেয়ারটেকারের মৃত্যুর ঘটনায় সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে স্থানীয় সাংবাদিক ইমাম উদ্দিন সুমনের ওপর নিজে হামলা করে মোজাম্মেল চেয়ারম্যান।

Facebook Comments